banner

শেষ আপডেট ৬ জুলাই ২০২০,  ২২:৪১  ||   মঙ্গলবার, ৭ই জুলাই ২০২০ ইং, ২৩ আষাঢ় ১৪২৭

নগরীর বিভিন্ন পয়েন্টে করোনা স্যাম্পল কালেকশন বুথ স্থাপন করবে চিটাগাং চেম্বারঃ সরকারি সহায়তার অনুরোধ

নগরীর বিভিন্ন পয়েন্টে করোনা স্যাম্পল কালেকশন বুথ স্থাপন করবে চিটাগাং চেম্বারঃ সরকারি সহায়তার অনুরোধ

১ জুন ২০২০ | ১৯:৩৩ |    নিজস্ব প্রতিবেদক
  • নগরীর বিভিন্ন পয়েন্টে করোনা স্যাম্পল কালেকশন বুথ স্থাপন করবে চিটাগাং চেম্বারঃ সরকারি সহায়তার অনুরোধ

দি ক্রাইম ডেস্কঃ দি চিটাগাং চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাষ্ট্রি চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ৪টি ও মহানগরীর বিভিন্ন পয়েন্টে ৩টি করোনা ভাইরাস পরীক্ষার স্যাম্পল কালেকশন বুথ স্থাপন করতে যাচ্ছে। এ ব্যাপারে সিভিল সার্জন ডাঃ শেখ ফজলে রাব্বি’র প্রতি আজ সোমবার ১ জুন এক পত্রের মাধ্যমে সহযোগিতার আহবান জানিয়েছেন চেম্বার সভাপতি মাহবুবুল আলম।

পত্রে তিনি উল্লেখ করেন-করোনা ভাইরাস আক্রান্তের ক্ষেত্রে বর্তমানে রাজধানী ঢাকার পরে চট্টগ্রামের অবস্থান। দেশের বাণিজ্যিক কার্যক্রমের কেন্দ্রবিন্দু এই বন্দর নগরীতে প্রায় ৬০ লক্ষ লোকের বসবাস। বর্তমানে করোনার প্রাদুর্ভাবের কারণে এই শহরে সাধারণ জনগণ অত্যন্ত ঝুঁকির মধ্যে রয়েছে। সরকারিভাবে জেনারেল হাসপাতাল, চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল ও ফৌজদারহাটস্থ বিআইটিআইডি-সহ বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানে করোনা পরীক্ষা অব্যাহত রয়েছে। কিন্তু বিশাল জনগোষ্ঠির তুলনায় করোনা পরীক্ষার এই আয়োজন অত্যন্ত অপ্রতুল। বিশেষ করে স্যাম্পল কালেকশনের সুবিধা শুধুমাত্র সেন্টারসমূহে বিদ্যমান বলে করোনা এবং করোনাবিহীন উভয় রোগীদের সংমিশ্রণ হচ্ছে এবং এসব কেন্দ্রের উপর মানুষের চাপ বৃদ্ধি পাচ্ছে। এ চাপ নিরসনের লক্ষ্যে স্বাস্থ্যবিধি অনুসরণপূর্বক মহানগরীর বিভিন্ন পয়েন্টে নমুনা সংগ্রহের বুথ স্থাপন অতীব জরুরী হয়ে পড়েছে।
এ প্রেক্ষাপটে বন্দর নগরী চট্টগ্রামে অবস্থিত দেশের অন্যতম শীর্ষ স্থানীয় বাণিজ্য সংগঠন দি চিটাগাং চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাষ্ট্রি’র পরিচালকমন্ডলী চট্টগ্রাম মহানগরে কোভিড-১৯ টেস্ট করার ক্ষেত্রে সহযোগিতা প্রদানের লক্ষ্যে অত্র চেম্বারের পক্ষ থেকে অনুমোদন সাপেক্ষে কয়েকটি স্যাম্পল কালেকশন বুথ স্থাপন করার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেছে। চট্টগ্রামে করোনা ভাইরাস সনাক্তের ক্ষেত্রে এই উদ্যোগ সরকারি ব্যবস্থাপনার পাশাপাশি গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করবে বলে চেম্বার সভাপতি মনে করেন। এক্ষেত্রে যথাযথ ব্যবস্থা গ্রহণে সরকারি ব্যবস্থাপনা, বিধি-বিধান, প্রয়োজনীয় যন্ত্রপাতি, কিট ও আনুষাঙ্গিক অন্যান্য উপকরণ সংগ্রহে সার্বিক সহযোগিতা ও যথাযথ নির্দেশনা একান্ত প্রয়োজন বলে মাহবুবুল আলম উল্লেখ করেন।