banner

শেষ আপডেট ১৯ নভেম্বর ২০১৯,  ২২:২৬  ||   মঙ্গলবার, ১৯ই নভেম্বর ২০১৯ ইং, ৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৬

জামায়াত ক্যাডার সাংবাদিক কল্যাণ ট্রাষ্টের অনুদান পাওয়ায় সিইউজের ক্ষোভ

জামায়াত ক্যাডার সাংবাদিক কল্যাণ ট্রাষ্টের অনুদান পাওয়ায় সিইউজের ক্ষোভ

৯ নভেম্বর ২০১৯ | ১৭:৫৬ |    নিজস্ব প্রতিবেদক
  • জামায়াত ক্যাডার সাংবাদিক কল্যাণ ট্রাষ্টের অনুদান পাওয়ায় সিইউজের ক্ষোভ

প্রেস বিজ্ঞপ্তি : সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান, জামায়াত ক্যাডার সাংবাদিক কল্যাণ ট্রাষ্টের অনুদান পাওয়ায় সিইউজের ক্ষোভ, ঘটনা তদন্ত করে দোষীদের শাস্তি দাবি পেশাদার সাংবাদিক  না হওয়া সত্ত্বেও সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান, জামায়াতের ক্যাডার সাদাত উল্লাহ  সাংবাদিক কল্যাণ ট্রাষ্ট্রের অনুদান পাওয়ায় গভীর উদ্বেগ ও ক্ষোভ প্রকাশ করেছে স্বাধীনতা ও মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় বিশ্বাসী চট্টগ্রামের সাংবাদিক সমাজের প্রতিনিধিত্বকারী সংগঠন চট্টগ্রাম সাংবাদিক ইউনিয়ন-সিইউজে। সিইউজের সভাপতি নাজিমুদ্দীন শ্যামল, সাধারণ সম্পাদক হাসান ফেরদৌস এক বিবৃতিতে বলেছেন, সাদাত উল্ল্যাহ সাঈদীর মুক্তির দাবি জানিয়ে সাত বছর আগে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীকে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে হুমকি দিয়ে ছিলেন। জামায়াত নেতা সাঈদীর মানবতা বিরোধী অপরাধে সাজা হলে সামাজিক যোগাযোগা মধ্যমে বাঁশের লাঠি,তীর ধনুক, বল্লম নিয়ে রাস্তায় নামার আহবান জানিয়ে ছিলেন এই সাদাত উল্লাহ।  লোহাগাড়ার চেয়ারম্যান থাকা কালে এই জামায়াত ক্যাডার ইউনিয়নের দু:স্থ গরিব লোকের জন্য বরাদ্দকৃত  প্রায় সাড়ে ১২ হাজার কেজি সরকারি চাল গুদাম থেকে তুলে কালো বাজারে বিক্রী করে দেয়ার অভিযোগ রয়েছে।
জামায়াতের এই ক্যাডার সাতকানিয়া দুদু ফকির মাদ্রাসার শিক্ষকতার সাথে জড়িত। এত অপরাধ করা সত্ত্বেও জামায়াতের এই ক্যাডার কিভাবে প্রধানমন্ত্রীর সফরসঙ্গী হয়ে ছিলেন, প্রধানমন্ত্রীর তহবিল থেকে কিভাবে অনুদান পেয়েছে তা খতিয়ে দেখার দাবি জানিয়েছে সিইউজে। পেশাদার সাংবাদিক না হওয়া সত্বেও সাংবাদিক কল্যাণ ট্রাষ্টে কিভাবে এই জামায়াত ক্যাডার আবেদন করেছে, কারা তার আবেদনে সুপারিশ করেছে, কেন বোর্ড সভায়  তাকে সাংবাদিক কল্যাণ ট্রাষ্ট্রের তহবিল থেকে সবোর্চ্চ দুই লাখ টাকা বরাদ্ধ দেয়া হলো এবং প্রধানমন্ত্রীকে হুমকি দেয়ার পর কিভাবে সে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে উপস্থিত হল এসব কিছু খতিয়ে দেখার দাবি জানিয়েছে সিইউজে।
বিবৃতিতে নেতৃবৃন্দ বলেন, বর্তমান সরকারের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র এখনো থেমে নেই। প্রশাসনের অভ্যন্তরে ঘাপটি মেরে থাকা জামায়াত-বিএনপি-অগ্নিসন্ত্রাসীরা এখনো সক্রিয় রয়েছে। এদের শেকড় উন্মোচন করা জরুরী হয়ে পড়েছে।
বিবৃতিতে নেতৃবৃন্দ, সাংবাদিক কল্যাণ ট্রাষ্টের ব্যবস্থাপনা কমিটি পূর্ণগঠন, অসুস্থ, অসহায় সাংবাদিকদের সহায়তা দেয়ার ক্ষেত্রে অনিয়ম হয়েছে কিনা তা খতিয়ে দেখাসহ অগ্নিসন্ত্রাসী, জামায়াত ক্যাডারকে সাংবাদিক কল্যাণ ট্রাষ্টের আর্থিক সহায়তা পাওয়ার ক্ষেত্রে যারা সহযোগিতা করেছে তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী, তথ্যমন্ত্রীসহ সংশ্লিষ্ট সকল কর্তৃপক্ষের প্রতি আহবান জানিয়েছে সিইউজে।