banner

শেষ আপডেট ২২ অক্টোবর ২০১৯,  ১৯:৩০  ||   মঙ্গলবার, ২২ই অক্টোবর ২০১৯ ইং, ৭ কার্তিক ১৪২৬

জ্ঞান প্রয়োগের কৌশল শেখায় ইস্ট ডেল্টা—উপাচার্য অধ্যাপক সিকান্দার

জ্ঞান প্রয়োগের কৌশল শেখায় ইস্ট ডেল্টা—উপাচার্য অধ্যাপক সিকান্দার

২৪ সেপ্টেম্বর ২০১৯ | ১০:২৭ |    নিজস্ব প্রতিবেদক
  • জ্ঞান প্রয়োগের কৌশল শেখায় ইস্ট ডেল্টা—উপাচার্য অধ্যাপক সিকান্দার

ক্রাইম প্রতিবেদকঃ ব্যবসা বা যেকোন প্রতিষ্ঠান পরিচালনায় দক্ষতা অর্জনে এমবিএ’র জুড়ি নেই। তবে শুধুমাত্র ডিগ্রি অর্জন নয়, কর্মক্ষেত্রে তা প্রয়োগের কৌশল শিখতে হবে। শুধুমাত্র প্রতিষ্ঠানই পারে সে কৌশল শেখাতে। ইস্ট ডেল্টা ইউনিভার্সিটি একটি প্রতিষ্ঠান হিসেবে তাই জ্ঞানের প্রায়োগিক দিকটিতে জোর দেয়।গতকাল ২৩ সেপ্টেম্বর (সোমবার) বিকাল ৫টায় মাস্টার অব বিজনেস এডমিনস্ট্রেশন প্রোগ্রামের ওরিয়েন্টেশনে এ বক্তব্য রাখেন তিনি।
ইস্ট ডেল্টা ইউনিভার্সিটির (ইডিইউ) ফল ২০১৯ সেমিস্টারে এমবিএতে ভর্তি হওয়া নবীন শিক্ষার্থীদের উদ্দেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ কথা বলেছেন বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক মু. সিকান্দার খান।
বিশ্ববিদ্যালয়ের ভাইস চেয়ারম্যান সাঈদ আল নোমান বলেন, এমবিএ ক্লাসরুমে আবদ্ধ গৎবাঁধা শিক্ষাকার্যক্রম নয়। একজন এমবিএ শিক্ষার্থীর বর্তমান কর্পোরেট বিশ্ব সম্পর্কে সম্যক অভিজ্ঞতা অর্জন জরুরি। সে লক্ষ্যে তত্ত্ব বা থিওরির পাশাপাশি কেইস বেইজড অর্থাৎ, বর্তমান বাজার ব্যবস্থা নির্ভর কারিকুলাম তৈরি করেছি এমবিএ’তে। এক্ষেত্রে কাক্সিক্ষত মাত্রা অর্জনে এমবিএর ক্লাস কার্যক্রমে একাডেমিশিয়ানদের পাশাপাশি ইন্ডাস্ট্রিতে কর্মরত দক্ষ ও নেতৃস্থানীয় ব্যক্তিত্বদের যুক্ত করেছি।
ইডিইউর মহাপরিচালক সৈয়দ শফিকউদ্দীন আহমেদ তার বক্তব্যে নবাগতদের অভিনন্দন জানান ও তাদের সাফল্য কামনা করেন।
অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের অর্থনীতি বিভাগের অধ্যাপক ও ইস্ট ডেল্টা ইউনিভার্সিটির স্কুল অব বিজনেসের এডভাইজর ড. মো. আবুল হোসেন।
নবাগত শিক্ষার্থীদের বিশ্ববিদ্যালয় সম্পর্কে ধারণা দেয়া হয় অনুষ্ঠানে। সহকারী অধ্যাপক একেএম শারুল ইসলাম শিক্ষার্থীদের কাছে ইডিইউর শিক্ষাপদ্ধতি ও কোর্সগুলো সম্পর্কে বিস্তারিত আলোচনা করেন।
অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন স্কুল অব বিজনেসের অ্যাসোসিয়েট ডিন ড. মোহাম্মদ রকিবুল কবির। এতে আরো বক্তব্য রাখেন ইডিইউর ডেভেলপমেন্ট এন্ড প্ল্যানিং ডিরেক্টর শাফায়েত কবির চৌধুরী, সহকারী অধ্যাপক তাবাসসুম চৌধুরী, প্রক্টর অনন্যা নন্দী প্রমুখ।