banner

শেষ আপডেট ২১ সেপ্টেম্বর ২০১৯,  ২৩:১৫  ||   রবিবার, ২২ই সেপ্টেম্বর ২০১৯ ইং, ৭ আশ্বিন ১৪২৬

চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশের কল্যাণ সভা অনুষ্ঠিত

চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশের কল্যাণ সভা অনুষ্ঠিত

২০ মে ২০১৯ | ২১:৩০ |    নিজস্ব প্রতিবেদক
  • চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশের কল্যাণ সভা অনুষ্ঠিত

ক্রাইম প্রতিবেদকঃ “প্রত্যয় একটাই মানবিক পুলিশ হতে চাই” এই লক্ষ্যে আজ ২০ মে সোমবার সকাল ১০টায় দামপাড়া পুলিশ লাইন্সস্থ মাল্টিপারপাস সেডে চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশ কমিশনার  মোঃ মাহাবুবর রহমান এর সভাপতিত্বে কল্যাণ সভা অনুষ্ঠিত হয়।

সভার শুরুতে সিএমপির সেবা তহবিলে আর্থিক অনুদান হিসেবে সাউথ ইস্ট ব্যাংক এর ডেপুটি ম্যানিজিং ডিরেক্টর মোঃ আনোয়ার উদ্দিন চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশ কমিশনার  মোঃ মাহাবুবর রহমান এর নিকট ১০ লক্ষ টাকার চেক হস্তান্তর করেন। ইতিপূর্বে তিনি সিএমপির বৃত্তি তহবিলে ১০ লক্ষ টাকার চেক হস্তান্তর করেন।

সভায় অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার (ক্রাইম এন্ড অপারেশন)  আমেনা বেগম, বিপিএম-সেবা, সকল উপ-পুলিশ কমিশনার, অতিঃ উপ-পুলিশ কমিশনার, সহকারী পুলিশ কমিশনার, সকল থানার অফিসার ইনচার্জ সহ বিভিন্ন স্তরের পুলিশ সদস্যবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

কল্যাণ সভায় পিএসসি ও জেএসসিতে ভাল ফলাফল অর্জন করায় ১৬১ জনকে ১০ লক্ষ ৫৬ হাজার টাকা মেধা বৃত্তি এবং চিকিৎসা সহায়তা বাবদ ২১ জন পুলিশ সদস্য ও সিভিল স্টাফকে ১৭ লক্ষ ৪৬ হাজার টাকা প্রদান করা হয়।

এছাড়াও এবারের কল্যাণ সভায় অপরাধ দমন সংক্রান্তে তথ্য দিয়ে পুলিশি কার্যক্রমে সহায়তা করার জন্য জনৈক সবিতা রানী বিশ্বাস’কে বিশেষভাবে পুরস্কৃত করা হয়।

সভায় কমিশনার  বিভিন্ন স্তরের পুলিশ সদস্যদের সমস্যার কথা শুনেন এবং তাৎক্ষনিক সমাধানের ব্যবস্থা করেন। ডিউটিরত পুলিশ সদস্যদের মাঝে রমজান উপলক্ষে ইফতার, সেহেরী, ভাল মানের খাবার ও পানীয় সরবরাহের বিষয়টি নিশ্চিত করা হয়।

কল্যাণ সভায় পুলিশ সদস্যদের প্রাপ্য ছুটি শতভাগ ভোগ করার ব্যাপারে নিশ্চিত করার জন্য পুলিশ কমিশনার  সকল উপ-পুলিশ কমিশনারদের নির্দেশ প্রদান করেন এবং বাংলাদেশ পুলিশের নতুন উদাহরণ হিসেবে চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশের সকল সদস্যের ছুটি মঞ্জুর সংক্রান্ত তথ্য মোবাইল এসএমএস এ প্রেরণের ব্যবস্থা গ্রহণ করেন।

পুলিশ কমিশনার বলেন, “আমি ছুটি ভোগ না করলেও আমার ফোর্স যেন প্রাপ্য ছুটি ভোগ করতে পারে তা নিশ্চিত করতে হবে”।

এছাড়াও বেলা ১২ টায় সিএমপি’র কনফারেন্স হলে চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশের মার্চ ও এপ্রিল মাসের মাসিক অপরাধ সভা অনুষ্ঠিত হয়।

সভায় মার্চ-২০১৯ মাসে অস্ত্র ও মাদক উদ্ধার, মামলার রহস্য উদঘাটন, আসামী গ্রেফতার ও ভাল কাজের জন্য বিভিন্ন ক্যাটাগরিতে বিভিন্ন স্তরের ৬০ (ষাট) জন পুলিশ সদস্য ও সিভিল স্টাফ’দেরকে নগদ ২ লক্ষ ৪২ হাজার টাকা ও সম্মাননা সনদ প্রদান করা হয়। মার্চ-২০১৯ মাসে শ্রেষ্ঠ বিভাগ, শ্রেষ্ঠ সহকারী পুলিশ কমিশনার, শ্রেষ্ঠ সহকারী পুলিশ কমিশনার (ডিবি), শ্রেষ্ঠ পরিদর্শক, শ্রেষ্ঠ উপ-পরিদর্শক এর সম্মাননা সনদ প্রাপ্ত হয়েছেন যথাক্রমে উপ-পুলিশ কমিশনার (বন্দর) মোঃ হামিদুল আলম, বিপিএম, পিপিএম, সহকারী পুলিশ কমিশনার (কর্ণফুলী জোন) মোঃ জাহেদুল ইসলাম, সহকারী পুলিশ কমিশনার (ডিবি-পশ্চিম)  মোহাম্মদ মঈনুল ইসলাম, পুলিশ পরিদর্শক মোঃ আতাউর রহমান খন্দকার, অফিসার ইনচার্জ, বায়েজিদ থানা, এসআই/মোঃ কায়সার হামিদ, ডবলমুরিং থানা।

এপ্রিল-২০১৯ মাসে অস্ত্র ও মাদক উদ্ধার, মামলার রহস্য উদঘাটন, আসামী গ্রেফতার ও ভাল কাজের জন্য বিভিন্ন ক্যাটাগরিতে বিভিন্ন স্তরের ৫৯ জন পুলিশ সদস্য ও সিভিল স্টাফ’দেরকে নগদ ২ লক্ষ ৬৭ হাজার টাকা ও সম্মাননা সনদ প্রদান করা হয়। এপ্রিল-২০১৯ মাসে শ্রেষ্ঠ বিভাগ, শ্রেষ্ঠ সহকারী পুলিশ কমিশনার, শ্রেষ্ঠ সহকারী পুলিশ কমিশনার (ডিবি), শ্রেষ্ঠ থানা, শ্রেষ্ঠ উপ-পরিদর্শক এর সম্মাননা সনদ প্রাপ্ত হয়েছেন যথাক্রমে উপ-পুলিশ কমিশনার (দক্ষিণ)  এসএম মেহেদী হাসান, বিপিএম (বার), পিপিএম (বার), সহকারী পুলিশ কমিশনার (কোতোয়ালী জোন) নোবেল চাকমা, পুলিশ পরিদর্শক মোহাম্মদ মহসীন, পিপিএম, অফিসার ইনচার্জ, কোতোয়ালী থানা, এসআই/মোঃ মনিরুল ইসলাম, কর্ণফুলী থানা। এবারের অপরাধ সভায় ১ম বারের মতো শ্রেষ্ঠ মানবিক পুলিশ ক্যাটাগরিতে দেবব্রত কর, টিআই (সদরঘাট)’কে পুরস্কৃত করে পুলিশ কমিশনার একটি ব্যতিক্রমী উদ্যোগ গ্রহণ করেন।

পুলিশ কমিশনার তাহার বক্তব্যে নগরীর আইন শৃঙ্খলা পরিস্থিতি স্বাভাবিক থাকায় সিএমপি’র পুলিশ সদস্য’কে ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেন।

এই প্রক্রিয়া অব্যাহত রাখার জন্য সকল থানা ও ডিবি’কে যৌথভাবে কাজ করার পরামর্শ প্রদান করেন। পুলিশ কমিশনার  সকল জোনের ডিসিদের স্ব স্ব জোনে মাদক ও ছিনতাই প্রতিরোধে অধিকতর তৎপর হতে বলেন। সংশ্লিষ্ট ডিসিগণ’কে এই বিষয়টি তদারকি করার জন্য নির্দেশনা প্রদান করেন। রুজুকৃত মামলা ও অভিযোগ সমূহের দ্রুত ব্যবস্থা গ্রহণ করে পুলিশি সেবা নিশ্চিত করতে হবে।

সভায় পুলিশ কমিশনার আসন্ন পবিত্র ঈদুল ফিতর-২০১৯ উপলক্ষে নগরবাসী যাতে নিশ্ছিদ্র নিরাপত্তার মধ্যে তাদের কেনাকাটা, গমনাগমন ও ঈদ উদযাপন করতে পারে যেজন্য সকল পুলিশ সদস্যকে আন্তরিকতার সাথে দায়িত্ব পালনের জন্য নির্দেশনা প্রদান করেন। তাছাড়া পুলিশি কার্যক্রমে সহায়তা করার জন্য নগরবাসীর প্রতি আহ্বান জানান।