banner

শেষ আপডেট ১২ ডিসেম্বর ২০১৮,  ২০:০৯  ||   বৃহষ্পতিবার, ১৩ই ডিসেম্বর ২০১৮ ইং, ২৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৫

৮৮ রান তুলতেই ৫ উইকেট হারিয়েছে ওয়েস্ট ইন্ডিজ

৮৮ রান তুলতেই ৫ উইকেট হারিয়েছে ওয়েস্ট ইন্ডিজ

২৩ নভেম্বর ২০১৮ | ১৩:২০ |    নিজস্ব প্রতিবেদক
  • ৮৮ রান তুলতেই ৫ উইকেট হারিয়েছে ওয়েস্ট ইন্ডিজ

বাংলাদেশের বিপক্ষে প্রথম ইনিংসে ব্যাটিং বিপর্যয়ে পড়েছে সফরকারী ওয়েস্ট ইন্ডিজ। আজ শুক্রবার ম্যাচের দ্বিতীয় দিনে ৮৮ রান তুলতেই ৫ উইকেট হারিয়েছে তারা। সাকিব-তাইজুলের পাশাপাশি জোড়া উইকেট তুলে নিয়েছেন অভিষিক্ত নাঈম হাসান। ৩১ রানে ৩ উইকেট হারানোর পর প্রতিরোধ গড়ার চেষ্টা করেছিলেন সুনিল অ্যামব্রিস এবং রোস্টন চেইস। ৩১ রান করা চেইসকে ইমরুল কায়েসের তালুবন্দি করে ৪৬ রানের জুটি ভাঙেন নাঈম।

ফিরতি ওভারে বোলিংয়ে এসে আবারও আঘাত হানেন নাঈম। এই স্পিনারের ঘূর্ণিতে এলবিডাব্লিউ হয়ে যান সুনিল অ্যামব্রিস (১৯)। ৮৮ রানে ৫ উইকেট হারিয়ে এখন ধুঁকছে উইন্ডিজ।

আজ শুক্রবার নিজেদের প্রথম ইনিংস শুরু করতে নেমে চাপে পড়ে যায় ওয়েস্ট ইন্ডিজ। বাংলাদেশি স্পিনাররা চেপে ধরে তাদের। একমাত্র পেসার মুস্তাফিজুর রহমানও দারুণ বোলিং করেন। দলীয় ২৯ রানে কায়রন পাওয়েলকে (১৪) বোল্ড করে শুরু করেন তাইজুল। নিজের প্রথম ওভারের প্রথম বলেই অধিনায়ক কার্লোস ব্র্যাথওয়েটকে (১৩) সৌম্য সরকারের দারুণ এক ক্যাচে পরিণত করেন সাকিব। ওভারের শেষ বলে বোল্ড করে দেন শাই হোপকে (১)।

৪ রানের মধ্যে ৩ উইকেট হারিয়ে ধুঁকতে থাকে উইন্ডিজ। বিরতির আগে রোস্টন চেইসের ক্যাচ ছেড়ে সাকিবকে উইকেটবঞ্চিত করেন মুস্তাফিজ। শেষ পর্যন্ত তাকে ফেরান অভিষিক্ত নাঈম হাসান।

এর আগে নিজেদের প্রথম ইনিংসে ৩২৪ রানে অল-আউট হয় বাংলাদেশ। ক্যারিয়ারের ৮ম এবং টানা দ্বিতীয় টেস্ট সেঞ্চুরি হাঁকান মুমিনুল হক। ১৩৭ বলে ৯ বাউন্ডারিতে ক্যারিয়ারের ৮ম সেঞ্চুরি তুলে নেওয়ার পর তিনি থামেন ১২০ রানে। এর সঙ্গেই ধস নামে বাংলাদেশের ব্যাটিং লাইনআপে। আচমকা ১৩ রানের মধ্যে ফিরে যান শীর্ষ ৫ ব্যাটসম্যান মুমিনুল হক, মুশফিকুর রহিম, মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ এবং অধিনায়ক সাকিব আল হাসান।

এমতাবস্থায় ৯ম উইকেটে অর্ধশতাধিক রানের জুটি গড়ে দলকে তিনশ পার করান তাইজুল এবং অভিষিক্ত নাঈম হাসান। তাদের জুটিতে আসে মূল্যবান ৬৫ রান। আজ দ্বিতীয় দিন সকালে ২৬ রান করে আউট হন নাঈম হাসান। তবে তাইজুল ইসলাম অপরাজিত থাকেন ৩৯ রানে। এছাড়া ইমরুল কায়েস ৪৪ এবং সাকিব ৩৪ রান করেন। মুশফিক, রিয়াদ এবং সৌম্য সরকারের রান ছিল যথাক্রমে ৪, ৩ এবং ০। শ্যানন গ্যাব্রিয়েল নেন ৪ উইকেট।