banner

শেষ আপডেট ১৬ অক্টোবর ২০১৮,  ২২:২৪  ||   বুধবার, ১৭ই অক্টোবর ২০১৮ ইং, ২ কার্তিক ১৪২৫

অযাচিত পতাকা, ব্যানার, প্ল্যাকার্ড, বাদ্যযন্ত্র নেয়া যাবেনা স্টেডিয়ামে–পুলিশ কমিশনার

অযাচিত পতাকা, ব্যানার, প্ল্যাকার্ড, বাদ্যযন্ত্র নেয়া যাবেনা স্টেডিয়ামে–পুলিশ কমিশনার

২৪ সেপ্টেম্বর ২০১৮ | ২০:১২ |    নিজস্ব প্রতিবেদক
  • অযাচিত পতাকা, ব্যানার, প্ল্যাকার্ড, বাদ্যযন্ত্র নেয়া যাবেনা  স্টেডিয়ামে–পুলিশ কমিশনার

ক্রাইম প্রতিবেদকঃ চট্টগ্রামে অনুষ্ঠেয় এসিসি ইয়ুথ অনুর্ধ্ব ১৯ এশিয়া কাপ বাংলাদেশ ২০১৮ ক্রিকেট ম্যাচগুলোতে সব ধরণের অযাচিত পতাকা, ব্যানার, প্ল্যাকার্ড, বাদ্যযন্ত্র নিয়ে স্টেডিয়ামে প্রবেশ না করতে সিএমপি থেকে নির্দেশনা দেয়া হয়েছে। আজ সোমবার সাকলে দামপাড়াস্থ চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশ কমিশনার এর সম্মেলন কক্ষে এ সভায় এ নির্দেশনা দেয়া হয়। একই সাথে কাচেঁর বোতল, টিনের ক্যান, এলকোহল, সব ধরণের বাঁশের/ধাতব লাঠি, পতাকা দন্ড অথবা সদৃশ বস্তু, ধর্মীয়, উপজাতীয়, গোষ্ঠীগত, সম্প্রদায়িক সম্প্রীতি বিনষ্টকারী বক্তব্য সম্বলিত ব্যানার, পোস্টার, লেজার পয়েন্টার, প্রফেশনাল ভিডিও ক্যামেরা (মিডিয়াকর্মী ব্যতিত), নিরাপত্তাকর্মীদের নিকট বিপদজনক বিবেচিত যে কোন জিনিস নিয়ে স্টেডিয়ামে প্রবেশ না করতে সকলকে অনুরোধ জানানো হয়েছে।
চট্টগ্রাম মেট্টোপলিটন পুলিশ কমিশনার মোঃ মাহাবুবর রহমান, পিপিএম এর সভাপতিত্বে আগামী ২৮ সেপ্টেম্বর থেকে চট্টগ্রামে অনুষ্ঠেয় এসিসি ইয়ুথ অনুর্ধ্ব ১৯ এশিয়া কাপ বাংলাদেশ ২০১৮ ক্রিকেট ম্যাচগুলো সুষ্ঠু ও নির্বিঘ্নে পরিচালনার নিরাপত্তামূলক এই সমন্বয় সভা অনুষ্ঠিত হয়। সভায় কমিশনার চট্টগ্রামে অনুষ্ঠেয় এই ক্রিকেট ম্যাচের নিরাপত্তা ব্যবস্থা ও নিরাপত্তা পরামর্শ/নির্দেশনা সম্পর্কে সকলকে অবহিত করেন। তিনি অনুর্ধ্ব ১৯ এশিয়া কাপ ক্রিকেট ম্যাচ চলাকালীন নগরবাসীর সর্বাত্মক সহযোগিতা কামনা করেন এবং নিরাপত্তা নির্দেশনা/পরামর্শ প্রতিপালনের জন্য সকলের প্রতি বিনীত অনুরোধ জানান। সভায় কমিশনার মহোদয় ক্রিকেট ম্যাচ নিরাপদে ও নির্বিঘ্নে সম্পন্ন করতে সকল সংস্থাকে একযোগে আন্তরিকতার সাথে সমন্বিতভাবে কাজ করার ওপর গুরুত্ব আরোপ করেন।সভায় অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার (প্রশাসন ও অর্থ) মাসুদ উল হাসান, অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার (ট্রাফিক) কুসুম দেওয়ান, অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার (ক্রাইম এন্ড অপারেশন) আমেনা বেগম, বিপিএম-সেবা, উপ-পুলিশ কমিশনার, অতিঃ উপ-পুলিশ কমিশনার, সহকারী পুলিশ কমিশনার, অফিসার ইনচার্জ, চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন, বিসিবি, বিভাগীয় কমিশনার, সিডিএ, র‌্যাব-৭, জেলা প্রশাসন, ভেনু ম্যানেজার, ডিজিএফআই, এনএসআই, চমেক হাসপাতাল, ওয়াসা, এপিবিএন, বাংলাদেশ রেলওয়ে, বিভাগীয় তথ্য অফিস, পিডিবি, সিভিল সার্জন, বিআরটিএ, এয়ারপোর্ট ম্যানেজার, ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স, হোটেল রেডিসন ব্লু এর প্রতিনিধি উপস্থিত ছিলেন।