banner

শেষ আপডেট ১৮ মে ২০১৯,  ২২:৩৮  ||   রবিবার, ১৯ই মে ২০১৯ ইং, ৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬

চট্টগ্রামে হঠাৎ ধমকা হাওয়া ও গুড়ি গুড়ি বৃষ্টি

চট্টগ্রামে হঠাৎ ধমকা হাওয়া ও গুড়ি গুড়ি বৃষ্টি

১৭ এপ্রিল ২০১৮ | ১৮:৫৩ |    নিজস্ব প্রতিবেদক
  • চট্টগ্রামে হঠাৎ ধমকা হাওয়া ও গুড়ি গুড়ি বৃষ্টি

গ্রীস্মের তীব্র তাপদাহে যখন বন্দর নগরী চট্টগ্রামের জনজীবন স্থবির হয়ে পড়েছে ঠিক তখনই শুরু হয়েছে ধমকা হাওয়া।  হাওযার সাথে উড়ছে ধুলো বালি। এরি মধ্যে আবার গুড়িগুড়ি বৃষ্টি। কর্মব্যস্ত ও শ্রমজীবি মানুষ যেন একটু দম ফেরার সুযোগ পেয়েছে। ধুলোর ঝড় উড়ছে বৈশাখ মাসের হাওয়া। বহুবর্ণ শুকনো পাতারা হাওয়ার সওয়ার হয়ে ছুটছে দিকবিদ্বিক। মেঘ বলছে, ঝড় কম হলে ও ঝড়ের বাতাস উড়িয়ে দিবে অনেক ধুলো। ময়লা ধুলাবালি মিশ্রিত রাজপথ কিছুক্ষনের জন্য হলেও পরিস্কার হয়ে গেল। এটি হল চট্টগ্রাম নগরীর মঙ্গলবার বিকেলের দৃশ্য।
গেল বছরের চৈত্র মাস থেকে বাংলা ১৪২৫ সনের বৈশাখ মাসের প্রথম সপ্তাহ পর্যন্ত বন্দর নগরী চট্টগ্রাম সহ আশপাশের এলাকায় শুরু হয় তীব্র তাপদাহ। একদিকে প্রচন্ড রকমের গরম অন্যদিকে বিদ্যূতের ঘন ঘন লোড সেডিং এ দু কারনে নগরের জনজীবনে নেমে এসেছে চরম স্থবিরতা। কর্মজীবি মানুষের দৈনন্দিন কার্যক্রমে চলছে মন্তর গতি। শ্রমজীবি মানুষের আয়ের পথ বন্ধ হওয়ার উপক্রম। অফিস আদালত, ব্যবসা প্রতিষ্টান, কলকারখানায় নিয়োজিত মানুষ ও শ্রমিক সহ শিক্ষা প্রতিষ্টিানের শিক্ষার্থীদের রীতিমত হিমসিম খেতে এ বৈশাখ মাসের এ গরমে। খেটে খাওয়া মানুষরা গরমে বহির হতে না পেরে চরম আর্থিক কষ্টে দিনাতিপাত করছে। লোড সেডিং এর কারেন এইচএসসি পরিক্ষার্থীদের পড়া লেখায় মারাত্বক বিঘ্ন দেখা দেয়। গত মঙ্গলবার সকালে ও এমন অবস্থা বিরাজ করছিল চট্টগ্রামে। যখন দিনের তাপমাত্রা সর্বোচ্চ ৩৩.৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস পর্যন্ত পৌছে গেছে। তখনই বিকাল ২ টা থেকে শুরু হয় ধমকা হাওয়ার সাথে গুড়ি গুড়ি বৃষ্টি।
৪ বৈশাখ মংগলাবার দিন ও কালের সঙ্গে মিল রেখে নামের সুবিচারে ঠিকই সূর্যি মামাকে আড়ালে রেখে কিছুক্ষনের জন্য হলে ও নেমেছিল হালকা হাওয়ার সাথে বৃষ্টি। তবে বেড়েছে বাতাস, কমেছে মামার মেজাজও। একটুর জন্য হলেও নগর জীবনে নেমে আসে স¦স্থির নি:স্বাস।
নগরীর মেহেদীবাগের বাসিন্দা শিক্ষিকা আয়েশা বেগম জানান ব্যস্ততম শহরে একদিকে ঘনবসতিপূর্ণ দালান কোঠো ও অন্যদিকে গত কয়েকদিনে তীব্র তাপদাহ ও গরমে একেবারেই নরকযন্ত্রনায় ভূগছিলাশ। হঠাৎ দমকা হাওয়ার সাথে গুডি গুড়ি হওয়াতে কিছুটা হলে স্বস্থি পাচ্ছি।
এদিকে আবহাওয়ার পূর্বাভাসে বলা হয়েছে, বৃষ্টি হতে পারে বিকেলে। অফিস ফেরত মানুষের সঙ্গে ঝড়ের যে কী রাগ সে ঝড়ই জানে!
পতেঙ্গা আবহাওয়া অফিসের আবহাওয়াবীদ আবদুল হান্নান জানালেন, কুমিল্লা আর ফেনীতে বৃষ্টি শুরু হয়েছে, তবে চট্টগ্রামে হালকা বৃষ্টিপাত থাকবে। তবে তা যে খুব বেশি পরিমানে হবে, এমনটা নয়।